সেলফি

সিদ্ধার্থ মুখোপাধ্যায়



বিষ নেই তবু তার কুলোপানা চক্কর
বিষাদের সাথে তার দিনরাত টক্কর।
কখনও বিষাদ হারে, কখনো সে হেরে ভূত
ভেঙ্গে নয় ছয়, তবু বিনয়ের প্রতিভূ।

এই তো ঘরেতে ছিল। নেই? কোথা গেল যে...
একা রাস্তায় হাঁটে, নিভে যায় হ্যালোজেন।
খিদে পায় খুব তার, আকন্ঠ তৃষ্ণা
গলাতে যা লেগে আছে, নীল রঙ, বিষ না...

সস্তার নীল জামা, রঙ ছাড়ে অল্পেই।
থাকে নাকো সাতে পাঁচে, গুজবে বা গল্পে।
নেহাতই মূর্খ লোক, পড়ে নি সে চার্বাক
চেনা ছন্দয় ভুল করে বসে বারবার।

এমনিতে চুপ চাপ, মাল খেলে বাবাজী
যেচে সারমন দেয়, হয়ে যায় সামাজিক।



সাতটা বাঘে খেতে পারে না এমন গতর
বেশক্ প্রতি পূর্ণিমাতে চন্দ্রাহত।
জানলা দিয়ে চাঁদের আলো মুখের পাশে…
সবাই জানে আয়নাকে সে মন্দ বাসে
কারণ, মুখে অন্য দিকে জমাট আঁধার
আধকরোটী উদ্ভাসিত, বিষাদ আধা
ধার নিয়েছে, অথচ তার বুকের নীচে
মন্ত্র আছে উপচে পড়া নীল পিরিচে।

বিষাদ সারে মন্ত্রপড়া জল ছোঁয়ালে
তবুও চাঁদ পিছলে পড়ে আধ-চোয়ালে…

অলংকরণঃ সিদ্ধার্থ মুখোপাধ্যায়

ফেসবুক মন্তব্য