মূর্খ সিরিজ থেকে

যশোধরা রায়চৌধুরী


উন্মাদ লজিক বোঝ? পাগলের নিজস্ব লজিকে
দুটাকা পাঁচটাকা হয় অমৃত আরাম
একশো টাকা দুশ টাকা তার কাছে মানেই রাখে না
রাখে না রাখে না মানে তার কাছে কোন মানিব্যাগ
কেননা ব্যাগের ফুটো দিয়ে সব গলে গলে যায়
কেননা তরল সব টাকাকড়ি বৌদি নিয়ে নেয়।


উন্মাদ লজিক বুঝতে সাহায্য করেছ তুমি, ঠকানোর নতুন নিয়মে
আজকাল এক কিলো পেঁয়াজের নাম করে পাঁচশো পেয়াঁজ
কিনে আনো। বাকি টাকা ঠুং ঠাং গড়াতে গড়াতে
তোমার পেছনে আসে। এই সব টাকা যে তোমার
সচ্ছিদ্র পকেটে থাকবে বলে ভাগ্য করেই আসেনি।


একদিন দুইদিন তিনদিন ধরে
বুঝেছি মূর্খের আমি কত না চালাকি।
একটি একটি গণি আমি নিজের বিপন্নতা, এবং ঠকার
হিসেব ও ইতিবৃত্ত, এভাবেই মূর্খতা বা চালাকি সবটাই
চালান হয়েছে এক মাথা থেকে অন্য মাথায়।
যেমন শক্তির ছিল অনুক্রম, সংরক্ষণ, যেমন শক্তির।
পৃথিবীতে মূর্খতার পরিমাণ সর্বদা ধ্রুবক।
পৃথিবীতে প্রত্যেক মূর্খই প্রতি প্রতারণা থেকে পায় অল্প অল্প চালাকি, নিঃশেষ বিনিময়ে।

ফেসবুক মন্তব্য