তিনটি কবিতা

প্রণব বসুরায়


নরকের পথ

খন্ড মুহূর্তগুলি এভাবেও ঝরে যেতে পারে
ঝরে যায় ঝড় ও ঈষৎ বৃষ্টির রাতে...
বহুদূরে কেউ দ্যাখো সাজিয়ে দাবার ছক
অপেক্ষায় থাকে প্রতিপক্ষ-বন্ধু আসার

একা একা দান দ্যায়, একা একা গজ, নৌকো খায়
আবার সাজায়

পিশাচের বাস ঈশান কোণেই, এটা নিশ্চিত
ছায়া-পুস্তকেও মাঝে মাঝে রাবড়ি লেগে থাকে
আমরা থাকি পিঁপড়ে তাড়ানোয়...

সংখ্যালঘু হলেও জোটবদ্ধ হই না কখনও
নরকের পথ একাই হাঁটার...
*********

এবার কোথায়

কিছুটা উড়ান হলো, কিছুটা হাঁটাও...
পরিভ্রমণে দুরূহ সময় এলে
গুরুত্বপূর্ণ সাদা খাতা খুলে যায়-- দেখি
মিশরের পুরণো ছবি, নীল নদ-- ইচ্ছে হলেই
ছবি সেঁটে সাজানো যায় যে কোন শহর--
চাই শুধু যাদুদন্ডখানি
আর চাই মোহন বাঁশিটি

আমরাও অমাবস্যার গায়ে
এঁকে দিয়েছি বৃত্তাকার চাঁদ
মোড়ল ও পন্ডিতকে দিয়েছি নির্বাসন
বিরল প্রজাতির প্রজাপতি-চাষ মেঘকে দিয়েছি
দেখেছি সূর্য নিজেকে নিজেই পোড়ায়

কিছুটা উড়ান হলো, খানিক হাঁটাও
এখন মুখোমুখি জানতে চাই-- এবার কোথায়?

*********
পর্দা বদল

স্টেজটা নতুন নয়, পর্দা বদল--
নাটকটা বহুদিন পরে আবার মঞ্চে উঠবে --
সেই মর্মে লম্বা দেয়ালের মুখ
আড়াল করেছে রঙিন পোস্টার।...
প্রথম দিনে নাট্য-মন্ত্রী 'সূচনা" করবেন, ও
সাত মিনিটে নাট্য-চর্চার ইতিহাস শোনাবেন--
তাই অভিনয়ের তারিখ এ যাবৎ অনিশ্চিত রয়েছে--

মহড়া চলছে নিয়মিত, এর ফলে
অভিনয় তীক্ষ্ণ থেকে তীক্ষ্ণতম হয়ে উঠছে,
এতটাই, যে তুলোর ওপর পরীক্ষা চলছে তার,
ফলাফল অনুযায়ী নম্বর পড়ে যাচ্ছে পরণের জিন্সে!
এ অবস্থায়
প্রধান নারী চরিত্র চারদিন এলো না মহড়ায়,
এই ফাঁকে দরকারী এ্যাবর্শন সুসম্পন্ন হয়ে যায়

স্টেজটা নতুন নয়, পর্দা বদল
"ভ্রান্তি বিলাস" বহুদিন পরে ফের
মঞ্চে উঠবে, হয়ত...

ফেসবুক মন্তব্য